উদ্ধার হল কংসাবতীর মুকুটমনিপুর জলাধারের ছাড়া জলে ভেসে যাওয়া ব্যক্তির মৃতদেহ

0
227

নিজস্ব প্রতিনিধি,বাঁকুড়াঃ দুর্ঘটনার প্রায় ১৫ ঘন্টা পর আজ সকালে উদ্ধার হল কংসাবতীর মুকুটমনিপুর জলাধার থেকে ছাড়া জলে ভেসে যাওয়া ব্যাক্তির মৃতদেহ। আজ সকালে মুকুটমনিপুর থেকে বেশ কিছুটা দূরে নদী খাতের এক পাশে মৃতদেহটি দেখতে পান স্থানীয় বাসিন্দারা। এরপরই পুলিশে খবর দেওয়া হলে পুলিশ মৃতদেহটি উদ্ধার করে। পুলিশ জানিয়েছে মৃতের নাম চুরকু হেমব্রম।মুকুটমনিপুর লাগোয়া বাগজবড়া গ্রামে একটি বিয়ে বাড়িতে যোগ দিতে এসে মঙ্গলবার দুপুরে কংসাবতী নদীতে স্নান করতে যান পুর্ব বর্ধমান জেলার মেমারির জাবুইডাঙ্গা গ্রামের বাসিন্দা চুরকু হেমব্রম ও জামালপুর থানার মোহনপুর গ্রামের বাসিন্দা রবি সিংহ ও শশিভূষণ সিংহ। সাইক্লোনের জেরে ভারী বৃষ্টির পূর্বাভাস থাকায় মঙ্গলবার বেলা আড়াইটা নাগাদ মোট ন’বার সতর্কতা মূলক সাইরেন বাজিয়ে মুকুটমনিপুর জলাধার থেকে পাঁচ হাজার কিউসেক জল ছাড়া শুরু করে জলাধার কর্তৃপক্ষ। চুরকু হেমব্রম সহ তিনজনই বহিরাগত হওয়ায় সাইরেনের অর্থ বুঝতে পারেননি। এরপর নদী খাতে হঠাৎ বেগে জল বইতে শুরু করলে তিনজনই তলিয়ে যেতে থাকে। স্থানীয়দের চেষ্টায় রবি সিংহ ও শশীভূষণ সিংহ কোনোক্রমে পাড়ে উঠতে সমর্থ হলেও জলে তলিয়ে নিখোঁজ হয়ে যান চুরকু হেমব্রম। তড়িঘড়ি মুকুটমনিপুর জলাধার থেকে জল ছাড়া বন্ধ করে শুরু হয় তল্লাশি অভিযান। পুলিশ ও বিপর্যয় ব্যবস্থাপন দফতর রাতভর খোঁজাখুজি করলেও চুরকুর কোনো খোঁজ মেলেনি। আজ সকালে স্থানীয়রা মৃতদেহটি নদীখাতে পড়ে থাকতে দেখে পুলিশে খবর দিলে পুলিশ মৃতদেহটি উদ্ধার করে ময়না তদন্তের জন্য বাঁকুড়া সম্মিলনী মেডিক্যাল কলেজে পাঠায়।

LEAVE A REPLY