কুড়ুল দিয়ে স্ত্রীকে কুপিয়ে খুন করে গলায় দড়ির ফাঁস লাগিয়ে আত্মহত্যা স্বামীর

0
197

নিজস্ব প্রতিনিধি,বাঁকুড়া: কুড়ুল দিয়ে স্ত্রী কে খুন করে গলায় দড়ির ফাঁস লাগিয়ে আত্মহত্যা করল স্বামী। ঘটনাটি ঘটেছে বাঁকুড়ার পাত্রসায়ের থানার রামেশ্বরকুঁড়ে গ্রামে। পুলিশ জানিয়েছে মৃত দুজনের নাম রেনুকা বাগদি(২৭) অসিত বাগদি (৩৫)। খবর পেয়ে পাত্রসায়ের থানার পুলিশ মৃতদেহ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য বিষ্ণুপুর জেলা হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে। স্বামী স্ত্রীর মধ্যে বিবাদের কারনেই এই ঘটনা অনুমান পুলিশের। পুলিশ সুত্রে জানা গেছে মঙ্গলবার রাতে নিজের বাড়িতে কুড়ুল দিয়ে কুপিয়ে স্ত্রী কে খুন করে বাড়ি থেকে দূরে পুকুরের পাড়ে গিয়ে গলায় দড়ি দিয়ে আত্মহত্যা করে স্বামী। পুলিশ জানিয়েছে মৃত স্ত্রীর নাম রেনুকা বাগদি ও স্বামীর নাম অসিত বাগদি। মঙ্গলবার গভীর রাতে ৬ মাসের শিশু পুত্রের কান্না শব্দে ঘুমে ভেঙ্গে যায় এলাকাবাসীর দীর্ঘক্ষন শিশুর কান্না না থামায় এলাকার মানুষের সন্দেহ বাড়ে। পরে বাড়ি ঢুকে এলাকার মানুষ দেখেন বিছানায় রক্তাক্ত অবস্থায় পড়ে রয়েছে স্ত্রী রেনুকা। পরে পুকুরের পাড়ে ঝুলন্ত অবস্থায় পাওয়া যায় অসিতের দেহ। পাত্রসায়ের থানার খবর দেওয়া হলে পুলিশ এসে দুটি মৃতদেহ উদ্ধার করে। স্বামী স্ত্রীর মধ্যে অশান্তি ও ঝামেলার জেরে স্ত্রী কে খুন করে আত্মহত্যা করেছে অসিত প্রাথমিকভাবে মনে করছে পুলিশ। ঘটনার তদন্ত শুরু করেছে পুলিশ। মৃতদেহ দুটি উদ্ধার করে বিষ্ণুপুর জেলা হাসপাতালে পাঠানো হচ্ছে ময়নাতদন্তের জন্য।

LEAVE A REPLY