প্রার্থীর নাম বাদ রেখেই দেওয়াল লিখন করে পঞ্চায়েত নির্বাচনের প্রচারে তৃণমূল বিজেপি

0
38

নিজস্ব প্রতিনিধি,বাঁকুড়াঃ বছর ঘুরলেই পঞ্চায়েত। নির্বাচন দিনক্ষন ঘোষনা হয়নি। ঘোষনা হয়নি প্রার্থী তালিকা। তবে প্রস্তুতি তুঙ্গে। দলীয় প্রার্থীর নাম ছাড়াই দেওয়াল লিখন করে ভোট প্রচার শুরু করে দিল তৃণমূল ও বিজেপি। বাঁকুড়া সাংগঠনিক জেলা যুব তৃণমূল সভাপতির নেতৃত্বে বাঁকুড়া ১ নং ব্লকের কালপাথর এলাকায় দেওয়াল লিখনের মধ্য দিয়ে ভোট যুদ্ধের প্রচার শুরু করল ঘাসফুল শিবির। অন্যদিকে বাঁকুড়ার এক নম্বর ব্লকেরই আধারথোল এলাকায় দেয়াল লিখন এর মাধ্যমে ভোট প্রচার শুরু করে দিলো বিজেপিও। রবিবাসরীয় পঞ্চায়েত প্রচারে কালপাথর মোড়ের একটি ছোট্ট আদিবাসী গ্রামের দেওয়ালে তৃণমূলকে ভোট দেওয়ার আবেদন করে শুরু হল তৃণমূলের প্রচার। এদিনের দেওয়াল লিখনের পাশাপাশি বাড়ি বাড়ি ঘুরে রাজ্য সরকারের উন্নয়নের খতিয়ান তুলে উন্নয়নের নিরীখে ভোটারদের তৃণমূলকে ভোট দেওয়ার আবেদন করলেন তৃণমূলের নেতা কর্মীরা। অন্যদিকে বাঁকুড়ার এক নাম্বার ব্লকের আধাঁরথোল এলাকায় একইভাবে প্রার্থীর নাম বাদ দিয়ে দেওয়াল লিখন করতে দেখা গেল বিজেপিকেও। এদিন বিজেপির রাজ্য কমিটির সদস্য জয়ন্ত মন্ডলের নেতৃত্বে ভোট প্রচারের সামিল হলেন বিজেপি নেতা কর্মীরাও। রং তুলি হাতে আগামী পঞ্চায়েত নির্বাচনে বিজেপিকে ভোট দেওয়ার আবেদন জানালেন দেওয়াল লিখন এর মাধ্যমে। তৃণমূলেরর দেওয়াল লিখনকে কটাক্ষ করে বিজেপির দাবি, যা দুর্নীতি করেছে তৃণমূল। কেন্দ্রীয় প্রকল্পকে হাতিয়ার করে বাড়ি বাড়ি প্রচার করছে তৃণমূল। রাজ্যের প্রকল্প বলে ভুল বোঝানোর চেষ্টা করছে। মানুষ সব বুঝে গেছে কোনভাবেই তৃণমূল এবারের পঞ্চায়েত ভোটে ফুল ফোটাতে পারবে না বলেই দাবি বিরোধী বিজেপির। অন্যদিকে তৃণমূলের দাবি, বিজেপির নেতা নেতৃত্বের ঔদ্ধত্যই তৃণমূলের অনেকটা সুবিধা করে দিয়েছে। এমনিতেই বিজেপির ভাওতাবাজি মানুষ বুঝে গেছে। গত বিধানসভা এবং লোকসভা নির্বাচনে মানুষকে ভুল বুঝিয়ে যেভাবে তারা ভোট নিয়েছিল তারপরও বিধায়ক এবং সাংসদকে এলাকায় দেখতে পাওয়া যায়নি। আর এজন্যই এবারে মানুষ তৃণমূলের উপর আস্থা রাখবে। শাসক বিরোধী রাজনৈতিক তর্জার মধ্যেই লালদুর্গে ত্রিস্তর পঞ্চায়েতের ভোট যুদ্ধ দামামা যে বেজে গিয়েছে তা আজকের জুজুধান দু পক্ষের দেওয়াল লিখন করে প্রচার শুরু থেকেই অত্যন্ত স্পষ্ট।

LEAVE A REPLY